1. info@businessstdiobd.top : admin :
শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ০২:৫৭ পূর্বাহ্ন

হাইকোর্টের আদেশে নয়, মোটরযান আইনে ক্ষতিপূরণ দেবে জাবালে নূর!

রাজধানীতে বাস চাপায় নিহত দুই শিক্ষার্থীর পরিবারকে হাইকোর্টের আদেশে নয়, মোটরযান আইনে ক্ষতিপূরণ দিতে চেয়েছে জাবালে নূর পরিবহন কোম্পানি। বিষয়টি নিয়ে আইনি পদক্ষেপে যাবে বলেও জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

সোমবার (৩০ জুলাই) পরিবহনটির চেয়ারম্যান মো. জাকির হোসেন একথা জানিয়েছেন। হাইকোর্ট নিহতের প্রত্যেকের পরিবারকে এক সপ্তাহের মধ্যে পাঁচ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। কিন্তু মোটরযান আইনে ক্ষতিপূরণের পরিমাণ মাত্র ২০ হাজার টাকা।

রবিবার (২৯ জুলাই) দুপুরে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সামনের বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় শহীদ রমিজউদ্দীন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র আবদুল করিম ওরফে সজীব এবং একই কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী দিয়া খানম ওরফে মিম নিহত হন।

এ ঘটনায় হাইকোর্টে একটি রিট দায়েরের পর নিহত দুই শিক্ষার্থীর পরিবারকে সাত দিনের মধ্যে আপাতত পাঁচ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে জাবালে নূর পরিবহন কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। কোর্টের এমন রায়ের বাস্তবায়নের বিষয়ে জানতে চাইলে পরিবহনটির চেয়ারম্যান মো. জাকির হোসেন বলেন, ‘তারা মোটরযান আইনে ক্ষতিপূরণ দেবে।’

সোমবার (৩০ জুলাই) দুপুরে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজলের এক রিট আবেদনে বিচারপতি জেবিএম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চ বাস মালিককে নিহত দুই শিক্ষার্থীর পরিবারকে এক সপ্তাহের মধ্যে পাঁচ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দেন।

পাশাপাশি তাদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে কেন দুই কোটি টাকা করে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়েও রুল জারি করেন হাইকোর্ট।

জাকির হোসেন বলেন, ‘আগামীকাল মঙ্গলবার আমরা বিষয়টি নিয়ে আদালতে যাবো। আইন অনুযায়ী আমরা যদি ক্ষতিপূরণ দিতে হয় দেবো। তবে মোটরযান আইনে যেভাবে বলা আছে সেভাবে দেবো।’

মোটরযান অধ্যাদেশ আইন- ১৯৮৩ বলা আছে, দুর্ঘটনার ক্ষতিপূরণের পরিমাণ হবে মাত্র ২০ হাজার টাকা। এই আইন অনুযায়ী বিচার হলে নিহত পরিবার ২০ হাজার টাকার বেশি পাওয়ার সুযোগ নেই।

জাকির হোসেন বলেন, ‘মানবিক কারণে ক্ষতিপূরণ দেওয়া উচিত। কিন্তু আমাদের ওপর প্রশাসন দিয়ে যেভাবে চাপ দেওয়া হয়েছে সেটা এখন আমরা কিভাবে দিই? আমাদের নামে তো মামলা করা হয়েছে।’

জাকির হোসেন আরও বলেন, ‘আমরা চালকদের কোনো প্রশ্রয় দিচ্ছি না। তাদেরকে পুলিশে ধরিয়ে দিয়েছি। আইন অনুযায়ী তাদের বিচার হওয়া উচিৎ। আমরাও চাই তাদের শাস্তি হোক। বিষয়টি আমরা আইনিভাবে মোকাবেলা করবো।’

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

আরো পড়ুন
© All rights reserved © 2019 Business Studio
Theme Developed BY Desig Host BD